মঠবাড়িয়ায় নিজ শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে গৃহবধূর আত্মহত্যার চেষ্টা - মঠবািড়য়া সমাচার

শিরোনাম

Post Top Ad

Thursday, 11 June 2020

মঠবাড়িয়ায় নিজ শরীরে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে গৃহবধূর আত্মহত্যার চেষ্টা

মঠবাড়িয়ায় গৃহবধূ নিজ শরীরে আগুন ধরিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা
নিজস্ব প্রতিনিধিঃ পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলায় পারিবারিক কলহের জের ধরে রাহিমা বেগম (৩০) নামের এক গৃহবধূ নিজের শরীরে কেরোসিন ঢেলে নিজেই আগুন ধরিয়ে আত্মহত্যার প্রচেষ্টা চালায়। গৃহবধূ নাসিমা বেগম উপজেলা টিকিকাটা ইউনিয়নের ঘোষের টিকিকাটা গ্রামের ইমাম হোসেনের স্ত্রী। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আজ বৃহস্পতিবার (১১ জুন) সকালে স্বামীর সাথে ঝগড়া করে প্রথমে ঘুমের ওষুধ খেয়ে আত্মহত্যার পথ বেছে নেয়। সে প্রচেষ্টায় ব্যর্থ হলে রাত ৯ টা ১০ মিনিটের সময় নিজের গায়ে কেরোসিন ঢেলে নিজেই আগুন ধরিয়ে দেয়। সাথে সাথে তার সারা শরীরে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। আশেপাশে মানুষ আসার আগেই নাসিমা বেগম মারাত্মকভাবে আগুনে দগ্ধ হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। পরে পরিবারের লোকজন গৃহবধূ নাসিমা বেগমকে চিকিৎসার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে দায়িত্বপ্রাপ্ত চিকিৎসকরা উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন।ডাঃ রাকিবুর রহমান জানান, রাহিমা বেগমের শরীরের প্রায় ৬০ শতাংশ মারাত্মকভাবে অগ্নিদগ্ধ হয়। তার অবস্থা খুবই খারাপ হওয়ার আমরা তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে রেফার্ড করি।

No comments:

Post a comment

Post Top Ad

Responsive Ads Here